ঈদের দুপুরে নবাবি বিরিয়ানি

12

এমএনএ ফিচার ডেস্ক : ঈদ মানেই বিশেষ আয়োজনের সমাহার। সাজগোজ, পোশাক আর খাবারে থাকে নবাবি আয়োজন। মনের মাঝে উৎসবের হাওয়া আর অতিথি আগমন পুরো পরিবেশকে করে আরও বেশি জাকজমকপূর্ণ। তাইতো এমন দিনে দুপুরের আয়োজনে নবাবি বিরিয়ানি থাকতেই পারে। আপনার পরিবারও কেন বাদ যাবে নবাবি বিরিয়ানির স্বাদ নেয়া থেকে। আজ দেখে নিতে পারেন  রন্ধনশিল্পী মোসাম্মৎ সেলিনা হোসেন-এর দেয়া নবাবি বিরিয়ানির রেসিপি।

প্রয়োজনীয় উপকরণ সমূহ :

বাসমতি চাল ১ কেজি, খাসির মাংস টুকরো করে কাটা ২ কেজি, পেঁয়াজ কুঁচি ৭টি, আদা নবাবি বিরিয়ানিরসুন বাটা ২ চা চামচ, গরম মশলা গুঁড়া ১ চা চামচ, শুকনা মরিচ ৫টি, দারুচিনি ৩ টুকরো, দই ২ কাপ (ফেটানো), এলাচ ৫টি, গোল মরিচ ৮টি, লবঙ্গ ৮টি, শাহীজিরা ১ চা চামচ, হলুদ গুঁড়া আধা চা চামচ, জাফরান সামান্য সঙ্গে আধা কাপ দুধ, ধনে বা পুদিনাপাতা কুঁচি ১ চা চামচ, আলুবোখারা, কিসমিস, বাদাম, শুকনো ফল, ঘি, লবণ স্বাদ মতো।

যেভাবে তৈরি করবেন :

পাত্রে ঘি গরম করে আলুবোখারা, কিসমিস, বাদাম, শুকনো ফল একটু লবণ দিয়ে ভেজে তুলুন। এবার পেঁয়াজ বেরেস্তা করে নিতে হবে। দই, আদা-পেঁয়াজ-রসুন বাটা, হলুদ গুঁড়া ও লবণ দিয়ে মাংস মেরিনেট করে রাখতে হবে আধা ঘণ্টা। এবার একটি পাত্রে ঘি গরম করে মাংস দিয়ে রান্না করুন। এবার অপর একটি পাত্রে ঘি গরম করে গোটা মসলাগুলো কিছুক্ষণ ভেজে চাল দিন। এখন লবণ দিয়ে পরিমাণ মতো গরম পানি দিয়ে পোলাও রান্না করুন। লক্ষ রাখবেন যেন পোলাও কিছুটা কম সেদ্ধ হয়। বড় একটি পাত্রে প্রথমে কিছু পোলাও তারপর মাংস দিয়ে একটু একটু গরম মসলার গুঁড়া দিন, এভাবে কয়েকটি লেয়ার করুন। জাফরান ভেজানো দুধ দিয়ে দিন। সবশেষে ভাজা আলুবোখারা, কিসমিস, বাদাম, শুকনো ফল দিন এবার ২০ মিনিটের জন্য চুলার আচঁ কমিয়ে পাত্রের মুখে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে রাখুন। তারপর নবাবি বিরিয়ানি সার্ভিং ডিশে তুলে ওপরে ধনে বা পুদিনাপাতা কুঁচি ছড়িয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন।