বিশ্বব্যাপী ব্যাংকিং সেবা নিয়ে আসছে গুগল

এমএনএ ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : বিশ্বব্যাপী ব্যাংকিং সেবা নিয়ে আসছে গুগল। গ্রাহকদের বাণিজ্যিক ব্যাংকের মতো কারেন্ট অ্যাকাউন্ট বা চলতি হিসাবের সেবা দেবে এ টেক জায়ান্ট। মূলত তৃতীয় পক্ষের স্বনামধন্য কোনো বাণিজ্যিক ব্যাংক কিংবা আর্থিক প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে গ্রাহকদের ব্যাংকিং সেবা প্রদান করবে গুগল। এর আগে ফেসবুক, অ্যাপলের মতো টেক জায়ান্ট গ্রাহকদের জন্য ব্যাংকিং সুবিধা নিয়ে এসেছে। এবার এ তালিকায় যুক্ত হচ্ছে গুগল। খবর বিবিসি ও সিএনএন।

গ্রাহকদের ব্যাংকিং সেবা নিশ্চিত করতে দীর্ঘমেয়াদি একটি পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে গুগল।

এতে বলা হয়েছে, গ্রাহকরা গুগল পে’র মাধ্যমে বিশেষ একটি টুল ব্যবহার করে প্রচলিত ব্যাংকিং সুবিধা উপভোগ করতে পারবেন। সাধারণত বাণিজ্যিক ব্যাংকে চলতি হিসাব খুলে গ্রাহকরা যেভাবে লেনদেন করেন, গুগল পে দিয়েও একই সুবিধা পাওয়া যাবে। এ সেবাকে ‘স্মার্ট চেকিং’ অ্যাকাউন্ট নাম দিয়েছে গুগল। এক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানটি তৃতীয় পক্ষের কোনো ব্যাংক কিংবা আর্থিক প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তির ভিত্তিতে কাজ করবে। যুক্তরাষ্ট্রে গ্রাহকদের ব্যাংকিং সেবা দিতে গুগল সিটি গ্রুপের সঙ্গে চুক্তি করছে। আগামী বছর নাগাদ চালু হতে পারে গুগলের এ সেবা।

এর আগে ফেসবুক, অ্যাপল, উবার ও অ্যামাজনের মতো টেক জায়ান্টরা গ্রাহকদের জন্য ব্যাংকিং সুবিধা নিয়ে এসেছে।

এসব সুবিধার আওতায় গ্রাহকরা ক্রেডিট কার্ড ও ঋণ নিতে পারেন। তবে এসব উদ্যোগের সুনির্দিষ্ট লক্ষ্য রয়েছে। অ্যামাজন গ্রাহকদের ক্রেডিট কার্ড ও ব্যবসার জন্য ঋণ সুবিধা দেয়। ২০১১ সাল থেকে প্রতিষ্ঠানটি ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের জন্য ঋণ দিচ্ছে।

২০১৭ সালে জেপি মরগানের সঙ্গে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে ক্রেডিট কার্ড ইস্যু করছে অ্যামাজন। এর মধ্য দিয়ে প্রতিষ্ঠানটির ই-কমার্স ব্যবসা আরো জোরদার হয়েছে।

উবার বিশ্বব্যাপী গাড়ি পরিচালনার নেটওয়ার্ক জোরদার করতে গ্রাহকদের ক্রেডিট কার্ড, ডেবিট অ্যাকাউন্ট নাম সুবিধা দিয়ে থাকে।

মেসেজিং টুলের বিকাশের স্বার্থে গ্রাহকদের জন্য বিশেষ পে সার্ভিস চালু করেছিল ফেসবুক। অ্যাপলও ব্যবসার বিকাশে গ্রাহকদের ক্রেডিট কার্ড সুবিধা দিয়ে থাকে। তবে ঠিক কোন লক্ষ্য সামনে রেখে গ্রাহকদের জন্য বাণিজ্যিক ব্যাংকের মতো চলতি হিসাব সুবিধা চালু করা হচ্ছে, সে বিষয়ে স্পষ্ট কিছু জানায়নি গুগল।

এ বিষয়ে বোস্টসভিত্তিক আর্থিক সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান বেইন অ্যান্ড কোং কনসালট্যান্সি ফার্মের অংশীদার জেরার্ড দ্যু টইট বলেন, যখন প্রযুক্তি জগতে কোনো কোম্পানি নিজেদের অবস্থান পোক্ত করে, নিজেদের অপরিহার্য ভাবতে শুরু করে, তখনই কোম্পানিটি ব্যাংকিং খাতে বিনিয়োগের কথা ভাবতে পারে। গ্রাহকদের ব্যাংকিং সেবা দেয়ার চিন্তাভাবনা করতে শুরু করে। এ বিষয়ে গুগল এতদিন পিছিয়ে ছিল।

এখন চলতি হিসাব চালুর মধ্য দিয়ে বিশ্বব্যাপী গ্রাহকদের জন্য ব্যাংকিং সুবিধার পরিকল্পনা করছে গুগল। এমনটা মূলত গ্রাহকদের মনোযোগ আকর্ষণ ও টেক খাতে বিদ্যমান প্রতিযোগিতায় এগিয়ে যাওয়ার মনোভাব থেকেই করা হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, গ্রাহকদের জন্য চালু করা আর্থিক ও ব্যাংকিং সেবাগুলো ফেসবুকের বিজ্ঞাপন ব্যবসার বিকাশে কার্যকর ভূমিকা রেখেছে। গ্রাহকরা বিজ্ঞাপনের অর্থ পরিশোধের একটি সহজ মাধ্যম পেয়েছেন।

একই ভাবে বাণিজ্যিক ব্যাংকের সঙ্গে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে চালু হতে যাওয়া চলতি হিসাব গুগলের বিজ্ঞাপন খাতের বিকাশে কার্যকর ভূমিকা রাখবে বলে আশা করা হচ্ছে।

তবে ফেসবুক, অ্যাপল ও অ্যামাজনের ব্যাংকিং সেবা বিভিন্ন সময় সমালোচনার মুখে পড়েছে।বিশেষত আর্থিক খাতে তীব্র প্রতিযোগিতা তৈরি করার অভিযোগ রয়েছে।

একই সঙ্গে গ্রাহকদের ব্যক্তিগত তথ্যের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হচ্ছে এসব ডিজিটাল উদ্যোগকে। সম্প্রতি অ্যাপলের ক্রেডিট কার্ডে নারীদের তুলনায় পুরুষদের ২০ গুণ বেশি ঋণসীমা দেয়ার ঘটনা সামনে এলে বিশ্বজুড়ে তুমুল সমালোচনার মুখে পড়ে প্রতিষ্ঠানটি। জেরার্ড দ্যু টইটের মতে, এসব সমালোচনা থেকে শিক্ষা নিয়ে সতর্কতার সঙ্গে ত্রুটিমুক্ত ব্যাংকিং সেবা দেয়ার চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হবে গুগলকে।

x

Check Also

কোটি টাকারও বেশি মূল্যের পাঁচটি মোবাইল ফোন!

এমএনএ সাইটেক ডেস্ক : আধুনিক যুগে মুঠোফোন ছাড়া মানুষ প্রায় অচল।কিছু কিছু ক্ষেত্রে এই মুঠোফোন হয়ে ...

Scroll Up