নখ রাঙাতে নেইলপলিশের ব্যবহার

মনের মতো নেইল আর্ট আর বিভিন্ন ধরনের স্টোন এবং স্টিকারের ব্যবহার হাল ফ্যাশনে বেশ জনপ্রিয়।

ঢাকার বিউটি এক্সপার্ট মোসাম্মৎ সেলিনা হোসেন নখে নকশা করার ক্ষেত্রে কিছু টিপস দিয়েছেন।

– নখে নকশা করার আগে ‘বেইস কালার’ নির্ধারণ করা দরকার। এটি নখকে নকশার জন্য প্রস্তুত করে এবং তা দীর্ঘস্থায়ী করতেও সাহায্য করে। তাই সবসময় ভালো মানের বেইজ কোট বেছে নেওয়া উচিত।

– নখের নকশায় এখন বিভিন্ন আকারের এবং রংয়ের পাথর ব্যবহৃত হয়ে থাকে। তাই নিজের সংগ্রহে কিছু পুথি বা পাথর এবং এর আঠা রাখা যেতে পারে।

– যেকোনো আর্টে ব্রাশ যেমন জরুরি, নেইল আর্টের ক্ষেত্রেও তাই। নেইল আর্টের জন্য বিশেষ ধরনের ব্রাশ এখন বাজারে পাওয়া যায়। তবে চাইলে বিকল্প হিসেবে চিকন রং তুলিও ব্যবহার করা যায়। তাছাড়া রং নিয়ে খেলা করতে চাইলে আইশ্যাডো এপ্লিকেটরও ব্যবহার করা যেতে পারে।

– নেইল আর্টে ব্যবহার করা যেতে পারে ববি পিন এবং টুথ পিক। নখে পোলকা ডট বা বিভিন্ন রংয়ের ফোঁটা দিয়ে নকশা করতে বিভিন্ন ডটিং টুলস বাজারে পাওয়া যায়। যা বেশ ব্যয় সাপেক্ষ। তাই এর বিকল্প হিসেবে ববি পিন বা টুথ পিক ব্যবহার করা যেতে পারে। তাছাড়া আঠা দিয়ে নখে পাথর বসাতেও টুথ পিক ব্যবহার করা যায়।

– নখে নকশা করতে দারুণ সহায়ক ফয়েল পেপার বা স্কচটেইপ। ‘বেইস কালার’ শুকিয়ে গেলে মনের মতো ফয়েল পেপার বসিয়ে অন্য রং দিয়ে নকশা করা যায়।

– নেইল পলিশ উঠাতে তুলা প্রয়োজন। তাছাড়া নখের নকশা ঠিক করতে হাতের কাছে কটন বাড রাখা উচিত। রিমুভারে ডুবিয়ে নখের আশপাশে লেগে থাকা নেইল পলিশ বা নকশা ঠিক করতে কটন বাড বেশ উপকারী।

x

Check Also

ত্বক বুঝে বেছে নিন পছন্দের কাপড়

এমএনএ ফিচার ডেস্ক : একেক জনের ত্বক একেক রকম। সবার ত্বক সমান হয় না। এটাই ...

Scroll Up