মিস ইউনিভার্স ঘোষণা নিয়ে সমলোচনার ঝড়

এমএনএ বিনোদন ডেস্ক : এবারের মিস ইউনিভার্স ঘোষণায় ভুল তথ্যের কারণে রানার্স আপকে বিজয়ী করে মুকুট পড়ানো এবং পরবর্তীতে তা সংশোধন করে আসল বিজয়ীকে মুকুট পরিয়ে দেয়ার মতো নাটকীয়তায় সারা বিশ্বে ফেসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক ওয়েব সাইটে চরম সমালোচনার ঝড় বইছে।

চলতি বছর মিস ইউনিভার্সের মুকুট জয় করেছেন ফিলিপাইনের পিয়া আলোনজো উর্তবাচ। তবে উপস্থাপকের ভুলের কারণে প্রথমে এই মুকুট মাথায় চলে গিয়েছিল মিস কলম্বিয়া আরিয়াদনা গুটিয়ারেজ আরভালোর। স্থানীয় সময় গতকাল রবিবার সন্ধ্যায় লাভ ভেগাসে চূড়ান্ত পর্ব অনুষ্ঠিত হয়।

Miss Univers

যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসের এক্সিস থিয়েটার হলে তখন টানটান উত্তেজনা। কে হবেন এবারের মিস ইউনিভার্স। সেই মুহূর্তে অনুষ্ঠানের উপস্থাপক স্টিভ হার্ভে ২০১৫ সালের ‘মিস ইউনিভার্স’ হিসেবে মিস কলম্বিয়া আরিয়াদনা গুতিইয়েরেজের নাম ঘোষণা করলেন। এরপর শুরু হল তাকে মুকুট পড়িয়ে দেওয়ার আনুষ্ঠানিকতা।

‘নতুন মিস ইউনিভার্সের’ মাথায় মুকুট পরিয়ে দেন গতবারের বিজয়ী মিস কলম্বিয়া পাওলিনা ভেগা। নিজেকে যখন মিস ইউনিভার্স হিসেবে মেনে নিয়ে দর্শকদের সাথে আরিয়াদনা তার আনন্দ ভাগ করে নিচ্ছিলেন, তখন উপস্থাপক স্টিভ হার্ভে এসে ক্ষমা প্রার্থনা করেন। কিন্তু তখনো মিস কলম্বিয়া বুঝতে পারেননি তার কাছ থেকে মুকুট ‘ছিনিয়ে’ নেয়া হচ্ছে।

এ সংক্রান্ত ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন-

APTOPIX Miss Universe Pageant

এর একটু পরে সবাই হতবাক করে নিজের ভুল স্বীকার করে ফিলিপাইনের পিয়া আলোনজোকে ২০১৫ সালের ‘মিস ইউনিভার্স’ ঘোষণা করেন হার্ভে। ক্ষমা প্রার্থনা করে স্টিভ হার্ভে জানালেন মিস কলম্বিয়া ফার্স্ট রানারআপ, মিস ইউনিসভার্স নন। সঙ্গে থিয়েটার হলে হাসি-কান্নার রোল পড়ে যায়।

পরে এ ঘোষণা শুনে আরিয়াদনা চুপ হয়ে গিয়েছিলেন। মিস ফিলিপাইনস পিয়াও অবাক হয়ে গেলেন। কেননা, তাহলে তো মুকুট তার মাথায় ওঠার কথা। তার এই ধারণাকে আরো পরিষ্কার করে দিলেন সেকেন্ড রানার আপ মিস ইউএসএ। এরই মধ্যে উপস্থাপক আসল মিস ইউনিভার্স হিসেবে পিয়ার নাম ঘোষণা করেন।

মিস ইউনিভার্স হিসেবে নিজের নাম শুনে পিয়া ফার্স্ট রানারআপ আরিয়াদনার পাশে এসে দাঁড়ান। ততক্ষণে মিস ইউনিভার্সের মুকুট আরিয়াদনা গুতিইয়েরেজের মাথা থেকে খুলে নিয়ে পিয়া আলোনজোর মাথায় পড়িয়ে দেন গতবারের মিস ইউনিভার্স পাউলিনা ভেগা।

Miss Univers 4

নিজের ভুলের বিষয়ে উপস্থাপক হার্ভে বলেছেন, এটা তার ভুল। কার্ডে লেখা নামটি সঠিকভাবে না পড়ায় তিনি এর দায় স্বীকার করছেন।

সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমগুলোতে এ নিয়ে বয়ে যায় সমালোচনার ঝড়। #MissUniverse2015 হ্যাশট্যাগ দিয়ে টুইটারে কৌতুক করা হয়েছে আয়োজকদের এই মস্ত বড় ভুল নিয়ে। কানাডা থেকে মার্ক ক্রিচ লিখেছেন, ‘অ্যান্ড দ্য উইনার ইজ মিস-ইনফরমেশন’। অর্থাৎ এবারের বিজয়ী ভুল-তথ্য।

অবশ্য কিছুক্ষণ পরে মিস ইউনিভার্স প্রতিযোগিতার অফিশিয়াল পেজে নিজেদের ভুল স্বীকার করে একটি পোস্ট দেওয়া হয়।

৬৪তম মিস ইউনিভার্স ক্রাউন জয়ী মিস ফিলিপাইনের ভক্তরাও কর্তৃপক্ষের এ রকম ভুলের কঠোর সমালোচনা করেছেন।

Miss Univers 3

এই ভুলের জন্য নিজের দায় স্বীকার করে ক্ষমা চেয়েছেন অনুষ্ঠানের উপস্থাপক স্টিভ হার্ভে। নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে স্টিভ হার্ভে লিখেছেন, ‘এ ধরনের মারাত্মক ভুলের জন্য মিস কলম্বিয়া ও মিস ফিলিপাইনের কাছে আন্তরিকভাবে ক্ষমাপ্রার্থী।’

তবে পিয়া রানারআপ আরিয়াদনাকে সমবেদনা জানাতে ভোলেননি। পিয়া সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমি দুঃখিত। আমি তার কাছ থেকে মুকুট নিতে চাইনি। আশা করছি ভবিষ্যতে এ ধরনের প্রতিযোগিতা তার মাথায় মুকুট যাবে।’

আরিয়াদনা কিন্তু তার ভক্তদের নিরাশ করেননি। ভক্তদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘সব কিছু ঘটার পেছনে কারণ থাকে। তবে শেষ পর্যন্ত আমি খুশি।’

এ বছর ৮৩ টি দেশের ১৯ থেকে ২৭ বছর বয়সী নারীরা এ প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়। শেষ পর্যন্ত শীর্ষ পাঁচে ছিলেন কলম্বিয়ার আরিয়াদনা গুটিএরিজ, যুক্তরাষ্ট্রের অলিভিয়া জর্ডন,অস্ট্রেলিয়ার মনিকা রাদুলোভিক, ফ্রান্সের ফ্লোরা কোকিউরেল ও ফিলিপাইনের পিয়া অ্যালোনজো।

Harve

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার পোষাক প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান প্যাসিফিক মিলসের উদ্যোগে ১৯৫২ সালে শুরু হওয়া এ প্রতিযোগিতাটি প্রতি বছর অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। প্রথমে গোল্ডেন লেডির অঙ্গ সংগঠন কেসার-রথ এবং পরবর্তীতে গাল্ফ অ্যান্ড ওয়েস্টার্ন ইন্ডাস্ট্রিজ কর্তপক্ষের মাধ্যমে প্রতিযোগিতাটি পরিচালিত হয়েছিল।

১৯৯৬ সাল থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রিয়াল-এস্টেট ব্যবসায়ী, টেলিভিশন ব্যক্তিত্ব এবং লেখক ডোনাল্ড ট্রাম্প এর দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। সূত্র: বিবিসি

x

Check Also

সিরাজগঞ্জে হানিফ পরিবহনের ২ বাসের সংঘর্ষে নিহত ৩

এমএনএ জেলা প্রতিনিধি : সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার সয়দাবাদ এলাকায় বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম পাড়ে হানিফ পরিবহনের ...

Scroll Up