চাপা স্বভাবের মানুষেরা হন সবচাইতে বিশ্বস্ত এবং প্রতিভাবান

এমএনএ ফিচার ডেস্ক : বর্তমান সময়ে সব বয়সের মানুষই প্রতিনিয়ত ছুটছেন ট্রেন্ডের পেছনে। নতুন নতুন সব শখ, স্টাইল এবং অ্যাটিচিউডের সাথে মানিয়ে নিতে যখন সবাই ব্যস্ত, তখন কিছু মানুষ যত্ন করে নিজেকে রাখেন এসবের বাইরে। “কিছু একটা মিস করে ফেলছি”, চিন্তা তাদেরকে ভাবায় না, এসব জিনিস তাদের কাছে খুব তুচ্ছই মনে হয়। এমন চাপা ও একা থাকতে পছন্দ করেন এমন ব্যক্তিত্বের মানুষগুলোই হয়ে থাকেন খুব ভালো মানুষ। আপনার পরিচিত সব মানুষের মাঝে তারাই হন সবচাইতে বিশ্বস্ত এবং বুদ্ধিদীপ্ত।

এসব মানুষ একা থাকেন বলে মনে করার কোনো কারণ নেই যে তারা একাকী। তারা আসলে নিজের ইচ্ছাতেই অন্যদের সাথে দুরত্ব বজায় রেখে চলেন। এমন একটি মানুষ যদি আপনার বন্ধু হয়, তাহলে নিজেকে অনেক ভাগ্যবান মনে করতে পারেন আপনি। এমন নয় যে তারা খুব অহংকারী। বরং একেবারেই উল্টো, তারা একেবারে মাটির মানুষ হয়ে থাকেন এবং বাস্তব চিন্তা করেন। কিন্তু বন্ধু হিসেবে কাউকে বেছে নেওয়ার আগে তারা অনেক চিন্তাভাবনা করে নেন।

এমন মানুষগুলো মোটেই পছন্দ করেন না খেজুরে আলাপ এবং পরচর্চা। এবং এমন ব্যাপারগুলো নিয়ে যারা মেতে থাকে, তাদেরকেও এড়িয়ে চলেন এরা। জীবন নিয়ে তাদের ভাবনা হয় গভীর, আর এ কারণে মানুষ বুঝতেও সমস্যা হয় না তাদের।

এমন ধরণের মানুষ সবাই যে অন্তর্মুখী বা ইন্ট্রোভার্ট তা কিন্তু নয়! তাদের মাঝেও আছে বহির্মুখী বা এক্সট্রোভার্ট মানুষ। কিন্তু দিনের শেষে তারা বন্ধু নির্বাচনে সবসময় সতর্ক থাকেন। অনেক মানুষের ভিড়ে থাকা তারা পছন্দ করে না আর তাই অনেকেই ভুল করে তাদেরকে একাকী মনে করেন।

নির্জনে থাকতে পছন্দ করেন তারা, ঠিক। কিন্তু অন্যের সাথে আলাপ-আলোচনাতে তাদের কোনো সমস্যা হয় না। সুস্থ এবং সুন্দর সম্পর্ক গড়ে তুলতেও তারা পারদর্শী। এক্সট্রোভার্ট যারা, তারা অনেক মানুষের মাঝেও খাপ খাইয়ে নিতে পারেন, তবে তারা সবার সাথে সবসম্য মেশা পছন্দ করেন না। আজেবাজে মানুষের সাথে মেশার চাইতে নিরিবিলি সময় কাটানোটাকে বেছে নেন তারা। আপনি তাদের বন্ধু হতে চাইলে আপনার অজান্তেই অনেকগুলো ব্যাপারে আপনাকে যাচাই করে নেবে তারা। এসব পরীক্ষায় উৎরে গেলেই তাদের বন্ধু হবার মর্যাদা পাবেন আপনি। আর এই বন্ধুত্ব হয় এমনই খাঁটি যা থাকে জীবনভর।

কিন্তু যারা একটু অন্তর্মুখী? তাদের ব্যাপারটা কেমন?

তারা ভিড়ের মাঝে খুব অস্বস্তি বোধ করেন, এর বদলে নিরিবিলিতে থাকতেই তারা পছন্দ করেন। তারা খুব অল্প কিছু কাছের বন্ধুর সাথে সময় কাটাতে পারলেই স্বস্তিতে থাকেন। তাদেরকে আপনি খুঁজে পাবেন না কোনো কনসার্টে বা পার্টিতে। কম মানুষের আনাগোনা- এমন সব জায়গা তাদের পছন্দ।

এক্সট্রোভার্ট এবং ইনট্রোভার্ট- এমন দুই ধরণের মানুষই বুদ্ধিমান এবং সরল ধরণের মানুষ পছন্দ করেন। সবার সাথে তারা বন্ধুত্ব করেন না ঠিকই। কিন্তু এই মানুষগুলোর বন্ধু হতে পারলে তাদের মাঝে লুকিয়ে থাকা চমৎকার, বুদ্ধিদীপ্ত এবং বিশ্বস্ত মানুষটির সান্নিধ্য পাবেন আপনি, সেটা কি কম?

x

Check Also

আইনের জ্ঞান ও সচেতনতা : জাতীয় উন্নয়নের চাবিকাঠি

মীর মোশাররেফ হোসেন পাকবীর : ঈদ-উল-আযহা উদযাপনের পরে ঢাকা শহর মাত্রই তার পুরাতন ভীড়াক্রান্ত রূপ ফিরে ...

Scroll Up