বীরাঙ্গনা রমা চৌধুরী আর নেই

এমএনএ রিপোর্ট : চলে গেলেন একাত্তরের জননী গ্রন্থের লেখিকা ও বীরাঙ্গনা রমা চৌধুরী। আজ সোমবার ভোর ৪টা ৪০ মিনিটে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে মারা যান তিনি।

রমা চৌধুরীর বইয়ের প্রকাশক আলাউদ্দীন খোকন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আলাউদ্দীন খোকন বলেন, গতকাল রবিবার (২ সেপ্টেম্বর) রাত ১১টার দিকে লেখিকা রমা চৌধুরীর শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে রাতেই তাঁকে লাইফ সাপোর্ট দেওয়া হয়। সেখানে থেকেই সোমবার ভোর ৪টার দিকে তার লাইফ সাপোর্ট খুলে দেওয়া হয়।

রমা চৌধুরীকে শেষবারের মতো শ্রদ্ধা জানাতে সোমবার সকাল ১০টার পর তার মরদেহ চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে রাখা হবে। সেখানে সর্বস্তরের মানুষ এই রীরাঙ্গনাকে শ্রদ্ধা জানাবেন।

রমা চৌধুরীর বয়স হয়েছিল ৭৯ বছর। তিনি দীর্ঘদিন ধরে উচ্চ রক্তচাপ, ডায়াবেটিস ও হাড়ের ব্যথাসহ নানা রোগে ভুগছিলেন।

১৯৩৬ সালের সালে চট্টগ্রামের বোয়ালখালী থানার পোপাদিয়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন রমা চৌধুরী। ১৯৬১ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাংলা ভাষা ও সাহিত্যে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন তিনি। ১৯৬২ সালে কক্সবাজার বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষিকার দায়িত্ব পালনের মধ্য দিয়ে শুরু হয় তাঁর কর্মজীবন। দীর্ঘ ১৬ বছর তিনি বিভিন্ন উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষিকার দায়িত্ব পালন করেন।

রমা চৌধুরীর সংসার ছিল চার ছেলে সাগর, টগর, জহর এবং দীপংকরকে নিয়ে। মুক্তিযুদ্ধের সময় পাকবাহিনীর গুলিতে দুই ছেলে নিহত ছাড়াও শারীরিক নিপীড়নের শিকার হয়েছিলেন তিনি। তাঁর ঘর-বাড়ি পুড়িয়ে দেওয়া হয়। তবু জীবনযুদ্ধে হার মানেননি এ বীরাঙ্গনা। শুরু করেন নতুনভাবে পথচলা।

লেখিকা হিসেবেও যথেষ্ট খ্যাতি পেয়েছেন রমা চৌধুরী। এ পর্যন্ত তিনি ১৮টি বই লিখেছেন। কোমরের আঘাত, গলব্লাডার স্টোন, ডায়াবেটিস, অ্যাজমাসহ নানা রোগে আক্রান্ত হওয়ায় চলতি বছরের ১৫ জানুয়ারি চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় রমা চৌধুরীকে। এরপর থেকে তিনি সেখানেই চিকিৎসাধীন ছিলেন।

আজীবন সংগ্রামী এই বীরাঙ্গনার মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে চট্টগ্রামসহ দেশের সর্বত্র।

মুক্তিযুদ্ধে সম্ভ্রম, ঘরবাড়ি, নিজের সৃষ্ট সাহিত্যের পাণ্ডুলিপি, সর্বোপরি দুই সন্তান হারানো এই জীবনসংগ্রামী তিন দশকের বেশি সময় ধরে চট্টগ্রামের রাস্তায় রাস্তায় ঘুরে বিক্রি করতেন নিজের লেখা বই। নিজেকে তিনি বলতেন ‘একাত্তরের জননী’। ষাটের দশকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগ থেকে মাস্টার্স করেছিলেন এই মহীয়সী নারী।

রমা চৌধুরীর প্রকাশিত গ্রন্থের সংখ্যা ১৮। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- নজরুল প্রতিভার সন্ধানে, রবীন্দ্রসাহিত্যে ভৃত্য, একাত্তরের জননী, স্বর্গে আমি যাব না, চট্টগ্রামের লোকসাহিত্যে জীবনদর্শন, শহীদদের জিজ্ঞাসা, নীল বেদনার খাম, এক হাজার এক দিন যাপনের পদ্য, সেই সময়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, ভাববৈচিত্র্যে রবীন্দ্রনাথ ইত্যাদি।

x

Check Also

গাজীপুর-৫ আসনের বিএনপির প্রার্থী ফজলুল হক গ্রেপ্তার

এমএনএ রিপোর্ট : আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে গাজীপুর-৫ আসনের বিএনপির মনোনীত প্রার্থী জেলা বিএনপির ...

Scroll Up