আপিলে মনোনয়ন বৈধ হলো যাদের

এমএনএ রিপোর্ট : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে (ইসি) আপিল করেছেন ৫৪৩ জন। আজ থেকে শুরু হয়েছে তাদের আপিল শুনানি। ৮ ডিসেম্বর (শনিবার) পর্যন্ত অর্থাৎ টানা তিনদিনে এসব আপিল আবেদন শুনানি নিষ্পত্তি করবে ইসি।

আজ (বৃহস্পতিবার) আপিল আবেদনের ক্রমিক ১ থেকে ১৬০ নম্বর পর্যন্ত শুনানি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ১৬১ থেকে ৩১০ নম্বর পর্যন্ত আগামীকাল শুক্রবার এবং শেষ দিন ৮ ডিসেম্বর (শনিবার) ৩১১ থেকে ৫৪৩ নম্বর পর্যন্ত আবেদনের আপিল শুনানি গ্রহণ করবে কমিশন।

প্রথম দিনের শুরুতেই প্রার্থিতা ফিরে পেয়েছেন পটুয়াখালী-৩ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী গোলাম মাওলা রনি, বগুড়া-৭ আসনে বিএনপির প্রার্থী মোর্শেদ মিল্টন, ঢাকা-২০ আসনে ধামরাই উপজেলা বিএনপির সভাপতি মো. তমিজ উদ্দিন, সাতক্ষীরা-২ আসনে জেএসডি মনোনীত প্রার্থী আফসার আলী, কিশোরগঞ্জ-২ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মেজর (অব.) আখতারুজ্জামান, ঝিনাইদহ-২ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী আব্দুল মজিদ, ঢাকা-১ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী খন্দকার আবু আশফাক, গাজীপুর-২ আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী জয়নাল আবেদীন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৬ আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী জেসমিন নূর বেবী, রংপুর-৪ আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী মোস্তফা সেলিম বেঙ্গল।

মানিকগঞ্জ-২ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী সিংগাইর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবিদুর রহমান রোমান, সিরাজগঞ্জ-৩ আসনে মো. আইনাল হক, গাজীপুর-২ আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী মো. মাহবুব আলম ও মো. জয়নাল আবেদীন, খুলনা-৬ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী জেলা বিএনপির সভাপতি এস এম শফিকুল আলম মনা, হবিগঞ্জ-১ আসনে ইসলামী ফ্রন্টের জুবায়ের আহমেদ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী আবদুল্লাহ আল হেলালের মনোনয়ন বৈধ হয়েছে।

কুড়িগ্রাম-৪ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইউনুছ আলী, বরিশাল-২ আসনে আনিচুজ্জামান, ঢাকা-৫ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মো. সেলিম ভূঁইয়া, ঝিনাইদহ-৩ আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী কামরুজ্জামান স্বাধীন, কুমিল্লা-৩ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী কে এম মুজিবুল হক, মানিকগঞ্জ-১ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মো. তোজাম্মেল হক, সিলেট-৫ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী জামায়াত নেতা ফয়জুল মুনীর চৌধুরী, ময়মনসিংহ-৩ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী আহাম্মদ তায়েবুর রহমান, ঝিনাইদহ-৪ আসনে আব্দুল মান্নান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আসনে ইসলামী আন্দোলনের সৈয়দ আনোয়ার আহম্মদ লিটনের মনোনয়ন বৈধ হয়েছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী মামুনুর রশিদ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী আবু আসিফ, ঢাকা-১৪ আসনে জাকের পার্টির জাকির হোসেন, পঞ্চগড়-২ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী ফরহাদ হোসেন, মানিকগঞ্জ-৩ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মো. আতাউর রহমান, ময়মনসিংহ-৮ আসনে এম এ বাসার, ঢাকা-১৪ আসনে সৈয়দ আবু বকর সিদ্দিক, কুড়িগ্রাম-৩ আসনে আব্দুল খালেক, কুড়িগ্রাম-৪ আসনে মো. মাহফুজার রহমানের মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করেছে ইসি।

গত ২৮ নভেরের মধ্যে ৩ হাজার ৬৫ জন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। বাছাইয়ে বাদ পড়েছে ৭৮৬টি, বৈধ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র রয়েছে ২ হাজার ২৭৯টি।

উল্লেখ্য, তফসিল অনুযায়ী একাদশ সংসদ নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে আগামী ৩০ ডিসেম্বর। গত ২৯ নভেম্বর ছিল মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন ও ২ ডিসেম্বর ছিল মনোনয়নপত্র বাছাই। এদিন নির্বাচনে ৩০০ সংসদীয় আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য জমা দেওয়া ৩ হাজার ৬৫ মনোনয়নপত্রের মধ্যে ৭৮৬টি বাতিল করেন রিটার্নিং কর্মকর্তারা, যাঁদের মধ্যে বিএনপি, জাতীয় পার্টিসহ বিভিন্ন দলের শক্তিধর প্রার্থীও রয়েছেন। ৯ ডিসেম্বর প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময়। আর প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে ১০ ডিসেম্বর। প্রতীক বরাদ্দ দেয়ার পর থেকে প্রার্থী ও তার সমর্থকরা নির্বাচনী এলাকায় প্রচার-প্রচারণা চালাতে পারবেন।

x

Check Also

বিকালে সংবাদ সম্মেলনে আসছেন মির্জা ফখরুল

এমএনএ রিপোর্ট : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়নবঞ্চিতদের বিক্ষোভ ও দেশব্যাপী প্রতীক বরাদ্দের ডামাডোলের ...

Scroll Up