বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস আজ

এমএনএ রিপোর্ট : আজ মঙ্গলবার ১২তম বিশ্ব অটিজম দিবস। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে দিবসের কর্মসূচি উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বিশ্বজুড়ে দিনটি অটিজম সচেতনতা দিবস হিসেবে পালিত হচ্ছে। এবছর দিবসের প্রতিপাদ্য হলো ‘সহায়ক প্রযুক্তি ব্যবহার, অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন ব্যক্তির অধিকার’।

অটিজম বিষয়ে সামাজিক সচেতনতা সৃষ্টি ও তাদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও দিবসটি পালন করা হচ্ছে। এ উপলক্ষে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

অটিজম শিশুদের বিকাশগত একটি সমস্যা। অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশুরা সাধারণত অপরের সঙ্গে ঠিকমতো যোগাযোগ করতে পারে না, তারা অতিরিক্ত জেদি হয়ে থাকে এবং নিজেকে বিচ্ছিন্ন ও গুটিয়ে রাখার মানসিকতাসম্পন্ন হয়ে থাকে। অটিজমের সুনির্দিষ্ট কোনো কারণ নেই। তবে গবেষকরা মনে করেন, জেনেটিক, নন-জেনেটিক ও পরিবেশগত প্রভাব সমন্বিতভাবে অটিজমের জন্য দায়ী। শিশুর বিকাশে প্রাথমিক পর্যায়ে এটি সৃষ্টি হয়। এ পর্যন্ত পরিচর্যাই এর একমাত্র বিকল্প।

অটিজমে আক্রান্ত শিশু ও বয়স্কদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে সহায়তার প্রয়োজনীয়তাকে তুলে ধরতে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদ ২০০৭ সালে ২ এপ্রিলকে বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস হিসেবে পালনের সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত গ্রহণের পর থেকে প্রতি বছর দিবসটি পালন করা হচ্ছে। এ বছর দিবসটির প্রতিপাদ্য হলো ‘সহায়ক প্রযুক্তির ব্যবহার, অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন ব্যক্তির অধিকার’, যা অত্যন্ত সময়োপযোগী। বর্তমান যুগ প্রযুক্তিনির্ভর হয়ে গেছে।

এক সময় অটিজম ছিল একটি অবহেলিত জনস্বাস্থ্য ইস্যু। এ সম্পর্কে সমাজে নেতিবাচক ধারণা ছিল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কন্যা সায়মা ওয়াজেদ হোসেন পুতুলের নিরলস প্রচেষ্টায় জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অটিজম বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টি হয়েছে। তিনি ২০০৭ সালে এ বিষয়ে দেশে কাজ শুরু করেন। সায়মা এ অবহেলিত জনস্বাস্থ্য ইস্যুতে তার অবদানের জন্য বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার স্বীকৃতিও পেয়েছেন।

বাংলাদেশে ৪৭ হাজার ৪১৭ জন অটিজম নামের এই নিউরো-ডেভেলপমেন্ট ডিজঅর্ডারে আক্রান্ত বলে সমাজকল্যাণমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ গতকাল সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে জানান। তিনি বলেন, দেশে ১৬ লাখ ৪৪ হাজার ৬০৮ জন প্রতিবন্ধী রয়েছে। এর মধ্যে ১০ লাখের বেশি সরকারি ভাতা পাচ্ছেন। বাকিরাও পর্যায়ক্রমে ভাতা পাবেন বলে জানান মন্ত্রী।

দিবসটি উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টা ২০ মিনিটে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে নীলবাতি প্রজ্বলনের মাধ্যমে দিবসের উদ্বোধন করবেন। অটিজম দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরতে দেশের সব সরকারি-বেসরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানগুলোয় এরপর থেকেই তিন দিনব্যাপী নীলবাতি প্রজ্বলন কর্মসূচি চলবে। এরপর অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন ব্যক্তিদের মাধ্যমে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও প্রামাণ্য চিত্র প্রদর্শনী হবে। অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন সফল ব্যক্তি হিসেবে ৫ জনকে এবং অটিজমে অবদান রাখায় ৩ জনকে পুরস্কার প্রদান করা হবে।

দিনটি উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক বাণী দিয়েছেন।

এদিকে গতকাল সোমবার সচিবালয়ে সভাকক্ষে অটিজম দিবসের নানা কর্মসূচির বিস্তারিত জানান সমাজকল্যাণ মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ। প্রেস ব্রিফিংয়ে মন্ত্রী বলেন, বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস উপলক্ষে ও দেশে অটিজম দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরতে তিন দিন সরকারি, বেসরকারি ও স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠানে নীলবাতি প্রজ্বলন করা হবে।

x

Check Also

আজ শুক্রবারের দিনটি আপনার কেমন যাবে?

এমএনএ ফিচার ডেস্ক : আজ ১৯ জুলাই ২০১৯, শুক্রবার। নতুন সূর্যালোকে আজ শুক্রবারের দিনটি আপনার ...

Scroll Up