Don't Miss
Home / আজকের সংবাদ / অর্থনীতি / বাজেট পুরোটাই ব্যবসা বান্ধব : অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল
অর্থমন্ত্রী

বাজেট পুরোটাই ব্যবসা বান্ধব : অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল

এমএনএ অর্থনীতি ডেস্কঃ অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, নতুন বাজেট পুরোটাই ব্যবসা বান্ধব। আর ট্যাক্স কমিয়ে দেশীয় শিল্পকে আরো বেশি সুরক্ষা দেয়ার ইঙ্গিতও দিলেন তিনি।

রেওয়াজ অনুযায়ী অর্থমন্ত্রী শুক্রবার বাজেট-পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে হাজির হয়েছিলেন। ভার্চুয়াল এ সংবাদ সম্মেলনে তিনি সাংবাদিকদের বাজেট সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন।

কর্মসংস্থানের পরিকল্পনা নিয়ে সাংবাদিকরা তার দৃষ্টি আকর্ষণ করলে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘বাজেট ইজ কোয়াইট ওপেন। পুরোটাই ব্যবসা বান্ধব। আমি মনে করি ব্যবসায়ীরা সুযোগ নেবে। সুযোগ নেয়া মানে হচ্ছে উৎপাদন যাওয়া। উৎপাদনে গেলে তা হবে কর্মসংস্থান। কর্মসংস্থান সৃষ্টি না করলে উৎপাদন কীভাবে হবে?’

‘এজন্য আমি মনে করি ব্যবসায়ীরা কর্মসংস্থান সৃষ্টির কাজটি করবে। আমরা মেইড ইন বাংলাদেশের ট্যাগলাইনটা ব্যবহার করতে শুরু করেছি। এটা সময়োপযোগী পদক্ষেপ।’

এ সময় ভবিষ্যতে ভ্যাট, ট্যাক্স কমিয়ে দেশীয় শিল্পকে আরো বেশি সুরক্ষা দেয়া হবে বলে ইঙ্গিত দেন অর্থমন্ত্রী।

তিনি বলেন, ‘আমাদের দেশীয় পণ্য যেগুলো আছে। যেখানেই সম্ভাবনা আছে, সক্ষমতা আছে, আমরা সেটাকে কাজে লাগাব।’

প্রস্তাবিত বাজেটে বিরাট ছাড় এসেছে করপোরেট করের ক্ষেত্রে, এছাড়া ‘মেইড ইন বাংলাদেশ’ ব্র্যান্ড তৈরির লক্ষ্যে ভারী শিল্পে কর অবকাশ সুবিধা দিয়েছেন অর্থমন্ত্রী। স্থানীয় শীল্পে উৎসাহ দিতে শুল্ক ও করে নীতি সহায়তা দেয়া হয়েছে।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা কিছুটা ফ্লেক্সিবল থাকব। ভ্যাট ট্যাক্স কখনো বাড়াবো না। এটা পরিবর্তন হতে থাকবে। পরিবর্তন হওয়া মানে কমে যাওয়া। এর উদ্দেশ্য থাকবে রেভিনিউ বাড়ানো।’

মহামারী পরিস্থিতিতে কর্মহীন হয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর কর্মসংস্থানে নতুন বাজেটে ‘স্পষ্ট কিছু নেই’ বলে সমালোচনা হলেও অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল তার পরিকল্পনার একটি ব্যাখ্যা দিয়েছেন।

তিনি বলেছেন, সরকারের একার পক্ষে কর্মসংস্থান সৃষ্টি করা সম্ভব না। সেই দায়িত্ব নিতে হবে বেসরকারি খাতকে। তারা যেন সেটা করতে পারে, সেজন্য প্রস্তাবিত বাজেটে দেশের ব্যবসা বাণিজ্যের প্রসারের সুযোগ-সুবিধা রাখা হয়েছে।

অর্থমন্ত্রীর ভাষায়, ‘প্রাইভেট সেক্টরকে ড্রাইভিং সিটে বসাতে হবে, তারা এগিয়ে নিয়ে যাবে। তারা যেন সেটা করতে পারে, সেজন্য সরকারকে সহযোগিতা করতে হবে।’

মহামারীর মধ্যে ২০২১-২২ অর্থবছরের জন্য ৬ লাখ কোটি টাকার এই বাজেট প্রস্তাব বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে উপস্থাপন করেন অর্থমন্ত্রী।

তিনি একে ‘জীবন-জীবিকা রক্ষার’ বাজেট বললেও বাজেটের পরিকল্পনায় তার ‘প্রতিফলন আসেনি’ বলে সমালোচনা হচ্ছে।

x

Check Also

সিপিডি

সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচিতে বাজেটে ৩ শুভঙ্করের ফাঁকি: দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য

এমএনএ অর্থনীতি ডেস্কঃ আগামী অর্থবছরের বাজেটে সরকারের সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচিতে সেন্টার ফর পলিসি ডায়লগের (সিপিডি) ...

Scroll Up