Don't Miss
Home / হোম স্লাইডার / রাশিয়ার করোনা টিকা প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি করছেঃ ল্যান্সেট
রাশিয়ার

রাশিয়ার করোনা টিকা প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি করছেঃ ল্যান্সেট

এমএনএ ফিচার ডেস্কঃ রাশিয়ার উদ্ভাবিত করোনাভাইরাসের টিকা স্পুটনিক-৫ করোনা প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি করছে শরীরে । কয়েক ডজন সংখ্যক মানুষের শরীরে প্রয়োগের পর এই ফল পাওয়া গেছে। ক্ষেত্রবিশেষে জ্বরের মতো কিছু পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা গেলেও তা খুবই মৃদু।

বিশ্বের সবচেয়ে পুরোনো ও প্রসিদ্ধ মেডিকেল জার্নাল ল্যান্সেটে শুক্রবার প্রকাশিত হয়েছে এ তথ্য। তৃতীয় ধাপের ট্রায়াল শেষ না করেই আগস্টে টিকা প্রস্তুতের ঘোষণা দেওয়ায় রাশিয়ার বেশ সমালোচনা হয়েছিল তখন।

ল্যান্সেটে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, পরীক্ষামূলক প্রয়োগের প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপে যে ৭৬ জনকে টিকাটি দেওয়া হয়েছিল, তাদের সবার শরীরেই করোনা ঠেকানোর প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি হয়েছিল।

সেই প্রতিরোধ ক্ষমতা করোনা হয়ে যাওয়ার পর যে ধরনের প্রতিরোধ ক্ষমতা জন্মায় তার মতোই। ইতোমধ্যে এ টিকার নিবন্ধনও হয়ে গেছে। বোতলজাত করা প্রস্তুত টিকার ছবি ছেড়েছে রাশিয়ার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

ল্যান্সেটের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার অন্যতম উপাদান টি-সেলেরও ওপর টিকার প্রভাব পর্যবেক্ষণ করেছেন গবেষকরা। গবেষকেরা দেখতে পেয়েছেন টিকা দেওয়ার ২৮ দিনের মধ্যে শরীরে রোগ প্রতিরোধী টি-সেল তৈরি করে বলে জানিয়েছে সিএনএন। তবে অনেক বিজ্ঞানীই এখনো তৃতীয় ধাপের ট্রায়াল শেষ করার ওপর জোর দিয়েছেন।

তারা বলছেন, এখন পর্যন্ত পরীক্ষামূলক প্রয়োগের যে ফল এসেছে তা আশাব্যঞ্জক। তারপরও মানুষের ওপর যত বেশি পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করা হবে, টিকার কার্যকারিতা বিষয়ে তত নিশ্চিত হওয়া যাবে বলে মনে করেন বিজ্ঞানীরা।

লন্ডন স্কুল অব হাইজিন অ্যান্ড ট্রপিকাল মেডিসিন প্রফেসর ব্রেনডন রেন সিএনএনকে বলেন , এখন পর্যন্ত রাশিয়ার টিকা নিয়ে ল্যান্সেটে যে তথ্য এসেছে তা অত্যন্ত আশাব্যঞ্জক।

x

Check Also

বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাসের টিকা পাবেন একজন নার্স

এমএনএ সংবাদ ডেস্ক :  বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাসের টিকা ২৭ জানুয়ারি রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে দেওয়া ...

Scroll Up
%d bloggers like this: