Don't Miss
Home / ফিচার / বিবিধ / গণমাধ্যম স্বাধীনতা সূচকে বাংলাদেশের উন্নতি

গণমাধ্যম স্বাধীনতা সূচকে বাংলাদেশের উন্নতি

এমএনএ ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : বাংলাদেশে গণমাধ্যমে স্বাধীনতার ক্ষেত্রে কিছুটা উন্নতি হয়েছে। তবে এবার বিশ্বের প্রায় সব অঞ্চলেই সংবাদপত্রের স্বাধীনতা কমার বিষয়টি লক্ষ্য করা গেছে।

আজ বুধবার বিশ্বজুড়ে গণমাধ্যমের স্বাধীনতা নিয়ে কাজ করা প্যারিসভিত্তিক সাংবাদিকদের সংগঠন রিপোর্টার্স উইদাউট বর্ডার্সের বার্ষিক প্রতিবেদন ‘ওয়ার্ল্ড প্রেস ফ্রিডম ইনডেক্স ২০১৬’ প্রকাশ করেছে।

সংগঠনটি ২০১৫ সালের বিশ্ব গণমাধ্যমের ওপর ওই প্রতিবেদন তৈরি করেছে। এ সূচকে বিশ্বের ১৮০টি রাষ্ট্রের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান এবার দুই ধাপ এগিয়ে ১৪৪তম হয়েছে।

২০১৫ ও ২০১৪ সালে বাংলাদেশের এই অবস্থান ছিল ১৪৬। আর ২০১৩ ও ২০১২ সালে ছিল ১৪৪তম।

এবারের সূচকে বাংলাদেশের সার্বিক স্কোর ৪৫ দশমিক ৯৪, যা গত বছর ছিল ৪২ দশমিক ৯৫।

World-Press-Freedom

এবার বাংলাদেশের মতো যুক্তরাষ্ট্র ও ভারতের পরিস্থিতি উন্নত হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান ৪১তম, যা গত বছরে ছিল ৪৯। আর ২০১০ সালে যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান ছিল ২০তম। ভারত এবার ১৩৩তম, ২০১৫ সালে তারা ছিল ১৩৬তম।

সূচকে সবার ওপরে রয়েছে ফিনল্যান্ড। দেশটি সূচকে টানা ছয় বছর ধরেই প্রথম স্থানে রয়েছে। এর পরের অবস্থানেই রয়েছে নেদারল্যান্ডস, নরওয়ে, ডেনমার্ক ও নিউজিল্যান্ড।

১৮০টি দেশের মধ্যে সূচকে সবচেয়ে নিচের দিকের দেশ ইরিত্রিয়া। এর ঠিক ওপরেই রয়েছে উত্তর কোরিয়া। উত্তর কোরিয়ার ওপরে রয়েছে চীন ও সিরিয়া।

সূচকে ফ্রান্স গত বছরের চেয়ে সাত ধাপ পিছিয়ে ৪৫তম, জাপান ১১ ধাপ পিছিয়ে ৭২তম, অস্ট্রেলিয়া ২৫তম অবস্থান ধরে রেখেছে।

বাংলাদেশের প্রতিবেশী দেশগুলোর মধ্যে নেপাল ১০৫, ভারত ১৩৩, থাইল্যান্ড ১৩৬, ফিলিপাইন ১৩৮, শ্রীলংকা ১৪১, মিয়ানমার ১৪৩, আফগানিস্তান ১২০, মালয়েশিয়া ১৪৬ ও পাকিস্তান ১৪৭তম অবস্থানে রয়েছে।

দ্য গার্ডিয়ান অনলাইনের প্রতিবেদনে জানানো হয়, বিশ্বব্যাপী সরকার ও ব্যবসায়ীদের চাপে গণমাধ্যমের স্বাধীনতা আরও বেশি খর্ব হয়েছে।

এ ছাড়া গণমাধ্যমের স্বাধীনতা খর্ব করে অপপ্রচারের একটি নতুন যুগের সূচনা হয়েছে। করপোরেট সুবিধার কথা ভেবেও গণমাধ্যম খবর প্রকাশ করা শুরু করেছে।

x

Check Also

করোনা ভাইরাসে

করোনায় বিশ্বব্যাপী ১১ লাখ ৭১ হাজার জন মানুষ প্রাণ হারাল

এমএনএ আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ মহামারী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সারা বিশ্বে ১১ লাখ ৭১ হাজার ৩৩৭ ...

Scroll Up
%d bloggers like this: